মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ০৭:১১ পূর্বাহ্ন
বিশেষ ঘোষণাঃ
• করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, টিকা নিন। • গুজব নয়, সঠিক সংবাদ জানুন। • দেশের কিছু জেলা, উপজেলা, গুরুত্বপূর্ণ স্থান এবং বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। • আপনি কি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ফিল্ম ও মিডিয়া, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা' বিষয়ে পড়ছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে 'ইন্টার্নশিপ'-এর সুযোগ। • আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যেকোনো ভিন্নধর্মী খবর (ছবি অথবা ভিডিও) পাঠাতে পারেন। • হটলাইনঃ +৮৮০ ১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ (হোয়াটসঅ্যাপ), • ই-মেইলঃ protibedonbd@gmail.com • গুগল, ফেসবুক ও ইউটিউবে আমাদের পেতে Bangladesh Protibedon লিখে সার্চ দিন।

সৌদি ভ্রমণে সুখবর, ফি ছাড়াই ৯৬ ঘন্টার ট্রানজিট ভিসা

বাংলাদেশ প্রতিবেদন
প্রকাশকালঃ বুধবার, ৯ নভেম্বর, ২০২২

সৌদি ভ্রমণে সুখবর, ফি ছাড়াই ৯৬ ঘন্টার ট্রানজিট ভিসা

প্রবাস ডেস্ক: সৌদি আরবে ভ্রমণ ভিসা ব্যবস্থার কাঠামোগত পরিবর্তনের অনুমোদন দিয়েছেন বাদশাহ্ সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সৌদ। নতুন কাঠামোতে কোনো ফি ছাড়াই ট্রানজিট ভিসার সময়সীমা হবে ৯৬ ঘণ্টা। এ ছাড়া সিঙ্গেল এন্ট্রি বা একবার প্রবেশাধিকার ভিসার মেয়াদ তিন মাস পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে।

৮ নভেম্বর ২০২২, মঙ্গলবার সৌদি আরবের আল-ইয়ামামা রাজ প্রাসাদে বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ আল-সৌদের সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার সাপ্তাহিক অধিবেশনে ভিসা ব্যবস্থার কাঠামোগত পরিবর্তনের অনুমোদন দেয়া হয়।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম জানায়, সিঙ্গেল এন্ট্রি ভিজিট ভিসায় থাকার মেয়াদ তিন মাস পর্যন্ত বাড়ানোর অনুমোদন দেয়া হয়েছে। এ ছাড়া ট্রানজিট ভিসায় থাকার মেয়াদও কোনো ফি ছাড়াই ৯৬ ঘণ্টা করা হয়েছে।

চলমান ভিসা কাঠামোর সংশোধনী অনুসারে, ভ্রমণের জন্য ট্রানজিট ভিসার মেয়াদ হবে তিন মাস এবং সৌদি আরবে বিনাখরচে অবস্থানের সময়কাল হবে ৯৬ ঘণ্টা। আগে সিঙ্গেল এন্ট্রিতে ভিসার মেয়াদ ছিল ৩০ দিন, আর মাল্টিপল ভিসায় ৯০ দিন।

ভিশন-২০৩০ বাস্তবায়নের জন্য সৌদি আরব ভ্রমণ ভিসা ব্যবস্থাপনার আমূল পরিবর্তন শুরু করে ২০১৫ সালে। তখন থেকেই কোনো মন্ত্রণালয়ে না গিয়ে শুধু অনলাইনে আবেদন করেই প্রবাসীদের পরিবারের সদস্যদের জন্য ভিজিট ভিসা ইস্যু শরু হয়।

তবে সৌদি সরকার এ জন্য প্রবাসীদের তাদের পরিবার নিয়ে আসার আগে পরিবারের বাসস্থান, চিকিৎসা বিমা এবং ভিজিট ভিসার মেয়াদ শেষ হওয়ার আগেই তাদের সৌদি আরব ত্যাগ করার বিষয়ে শর্ত দেয়। এ ছাড়া সৌদিতে অবস্থানকালে পর্যটকদের জন্য প্রণীত আইন মেনে চলার বিষয়টিও উল্লেখ করা হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ