শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ০৩:০০ অপরাহ্ন
বিশেষ ঘোষণাঃ
• করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, টিকা নিন। • গুজব নয়, সঠিক সংবাদ জানুন। • দেশের কিছু জেলা, উপজেলা, গুরুত্বপূর্ণ স্থান এবং বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। • আপনি কি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ফিল্ম ও মিডিয়া, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা' বিষয়ে পড়ছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে 'ইন্টার্নশিপ'-এর সুযোগ। • আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যেকোনো ভিন্নধর্মী খবর (ছবি অথবা ভিডিও) পাঠাতে পারেন। • হটলাইনঃ +৮৮০ ১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ (হোয়াটসঅ্যাপ), • ই-মেইলঃ protibedonbd@gmail.com • গুগল, ফেসবুক ও ইউটিউবে আমাদের পেতে Bangladesh Protibedon লিখে সার্চ দিন।

ইফতারে সম্প্রীতির মেলা চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির

বাংলাদেশ প্রতিবেদন
প্রকাশকালঃ বুধবার, ২৭ এপ্রিল, ২০২২

বাংলাদেশ প্রতিবেদন আহমেদ সাব্বির রোমিও : চলচ্চিত্রের অন্যান্য সংগঠনগুলোর তুলনায় পরিচালক সমিতির যে কোনো আয়োজন ঘিরেই সকলের মধ্যে আগ্রহ লক্ষ্য করা যায়। মাঝে এই আন্দয়োজনগুলোতে ভাটা পড়লেও মঙ্গলবার বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশনের (বিএফডিসি) দুই নম্বর ফ্লোরে ইফতার মাহফিল ঘিরে ছিলো সম্প্রীতির মিলনমেলা। এদিন, প্রযোজক, পরিচালক, শিল্পী, প্রদর্শক সমিতির নেতৃবৃন্দ ছাড়াও দেড় হাজার চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্টগণ সমিতির নিজস্ব ইফতার মাহফিলে অংশ নেন। ইফতার মাহফিলে গাজী মাজহারুল আনোয়ার, আলমগীর, আব্দুল লতিফ বাচ্চু, ছটকু আহমেদ, প্রযোজক খোরশেদ আলম খসরু, গোলাম কিবরিয়া লিপু, প্রদর্শক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আওলাদ হোসেন উজ্জলসহ ১৯ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। অন্যান্যের মধ্যে, বদিউল আলম খোকন, মুশফিকুর রহমান গুলজার, ওমর সানী, রিয়াজ ফেরদৌস, নিপুন, কেয়া, শাহনূর, কমল পাটেকর, জ্যাকি আলমগীর প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এদিকে- ইফতার মাহফিল ঘিরে বিনোদন সাংবাদিকদের সঙ্গেও সম্প্রীতি লক্ষ করা গেছে।

গত ১ এপ্রিল পরিচালক সমিতির নিজস্ব আনন্দয়োজনে সাংবাদিকদের নিমন্ত্রণ না জানানোয় সমালোচনার মুখে পরে সমিতি। এতে করে সমিতি ও বিনোদন সাংবাদিকদের মাঝে দুরত্ব তৈরি হলেও সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহানের আন্তরিকতায় দূরত্ব ঘুঁচে বিনোদন সাংবাদিকদের সঙ্গে সম্প্রীতির আভাস লক্ষ করা গেছে। পরিচালক সমিতির পাশে থাকায় এ সময় তিনি বিনোদন সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানান। এ বিষয়ে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহান বলেন, “অতীতে চলচ্চিত্র আর বিনোদন সাংবাদিক হাত ধরাধরি করে চলেছে। ভবিষ্যতেও চলবে। আমরা সব ধরনের ভুলের অবসান চাই। আশা করছি বিনোদন সাংবাদিক ভাইরা সহযোগিতা করবেন।” সোহানের এমন প্রতিক্রিয়ার জবাবে বিনোদন সাংবাদিক আহমেদ তেপান্তর বলেন, সত্যি বলতে চলচ্চিত্র ইতিবাচক ধারায় এগিয়ে নিতে হলে এই শিল্প এবং সাংবাদিকদের হাত ধরাধরি করেই চলতে হবে। অতীতেও হয়েছে। আমরা পরস্পরের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকলে ইন্ডাস্ট্রি এগিয়ে যাবে। সোহান ভাইকে ধন্যবাদ তার প্রশংসনীয় উদ্যোগের জন্য।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ