শনিবার, ২৮ মে ২০২২, ০১:৪৬ পূর্বাহ্ন
বিশেষ ঘোষণাঃ
• করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, টিকা নিন। • গুজব নয়, সঠিক সংবাদ জানুন। • দেশের কিছু জেলা, উপজেলা, গুরুত্বপূর্ণ স্থান এবং বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। • আপনি কি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ফিল্ম ও মিডিয়া, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা' বিষয়ে পড়ছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে 'ইন্টার্নশিপ'-এর সুযোগ। • আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যেকোনো ভিন্নধর্মী খবর (ছবি অথবা ভিডিও) পাঠাতে পারেন। • হটলাইনঃ +৮৮০ ১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ (হোয়াটসঅ্যাপ), • ই-মেইলঃ protibedonbd@gmail.com • গুগল, ফেসবুক ও ইউটিউবে আমাদের পেতে Bangladesh Protibedon লিখে সার্চ দিন।

২৬ মার্চ থেকে চালু এনজেপি-ঢাকা রুটে মিতালি এক্সপ্রেস

নিজস্ব বার্তা প্রতিবেদক
প্রকাশকালঃ মঙ্গলবার, ২২ মার্চ, ২০২২

২৬ মার্চ থেকে চালু এনজেপি-ঢাকা রুটে মিতালি এক্সপ্রেস।

মাসুদূর রহমান:

আরও দূরত্ব কমতে চলেছে দুই বাংলার। খুব শীঘ্রই ভারতের নিউ জলপাইগুড়ি ও বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা রুটে চালু হতে চলেছে মিতালি এক্সপ্রেস। ফলে এই মিতালি এক্সপ্রেসের হাত ধরে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের সঙ্গে বাংলাদেশের ঢাকার মধ্যে যোগাযোগ ফের শুরু হতে চলেছে। সব ঠিকঠাক থাকলে আগামী ২৬ মার্চ চালু হবে নিউ জলপাইগুড়ি-ঢাকা মিতালি এক্সপ্রেস। ইতিমধ্যে সেই সংক্রান্ত বিষয়ে বিশদে নির্দেশিকা জারি করেছে বাংলাদেশ সরকারের রেল মন্ত্রক। যেখানে জানানো হয়েছে চলতি মাসেই শিলিগুড়ির নিউ জলপাইগুড়ি থেকে ঢাকার মধ্যে যাত্রীবাহী তৃতীয় ট্রেন মিতালী এক্সপ্রেস পথ চলা শুরু করবে। নির্দেশিকায় ট্রেনের সফরসূচি এবং ভাড়া সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তিও প্রকাশ করা হয়েছে। আর বিষয়টি প্রকাশ্যে আসতেই উচ্ছ্বসিত পর্যটন ও ব্যবসায়ীরা। এর ফলে পর্যটনে জোয়ার আসবে বলে আশায় বুক বেঁধেছেন ব্যবসায়ীরা।

পশ্চিমবঙ্গের উত্তরবঙ্গে প্রচুর বাংলাদেশি প্রতি বছরই ভ্রমণ, চিকিৎসা ও শিক্ষার জন্য আসেন। এর আগে ভারত-বাংলাদেশের মধ্যে দু‘টি ট্রেন চালু হয়েছে। একটি মৈত্রী এবং অন্যটি বন্ধন এক্সপ্রেস। মৈত্রী ও বন্ধন এক্সপ্রেসের মতো উত্তরবঙ্গের সঙ্গে যোগাযোগকারী প্রথম ট্রেনটি মিতালি এক্সপ্রেস সফল হবে বলে আশায় দুই দেশের মানুষ। নিউ জলপাইগুড়ি থেকে ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট পর্যন্ত মোট যাত্রাপথ ৫৩০ কিলোমিটার পথ। এই পথ অতিক্রম করতে সময় লাগবে মাত্র ৯ ঘণ্টা। যাত্রাপথে বাংলাদেশের অধীনে রয়েছে ৪৪৬ কিলোমিটার। বাকিটা ভারতে. যাত্রাপথে বাংলাদেশে পরবে পার্বতীপুর, টাঙ্গাইল-সহ মোট ১৫টি রেলস্টেশন । কিন্তু নিরাপত্তার স্বার্থে কোথাও থামবে না ট্রেনটি।

তবে বাংলাদেশের রেলের বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী ট্রেনের এই সফরে রয়েছে হলদিবাড়ি, চিলাহাটি স্টপেজ। ওই স্টেশনে যাত্রীদের নাগরিকত্ব-সহ নিরাপত্তার বিষয়টি যাচাই করা হবে। প্রতি সপ্তাহে দু‘দিন করে ওই ট্রেনটি চলাচল করবে। ভারতে নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশন থেকে প্রতি সপ্তাহে রবিবার ও বুধবার ছাড়বে। একই ভাবে বাংলাদেশের ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট স্টেশন থেকে সোমবার এবং বৃহস্পতিবার ছাড়বে। বাংলাদেশ থেকে নিউ জলপাইগুড়ি পর্যন্ত বাংলাদেশে ট্রেনের ভাড়া এসি বার্থে ৪হাজার ৯০৫ টাকা, এসি সিটে ৩ হাজার ৮০৫ টাকা এবং এসি চেয়ারে জনপ্রতি ভাড়া ধার্য করা হয়েছে ২ হাজার ৭০৫ টাকা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ