রবিবার, ০৩ জুলাই ২০২২, ১০:৫৮ অপরাহ্ন
বিশেষ ঘোষণাঃ
• করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, টিকা নিন। • গুজব নয়, সঠিক সংবাদ জানুন। • দেশের কিছু জেলা, উপজেলা, গুরুত্বপূর্ণ স্থান এবং বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। • আপনি কি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ফিল্ম ও মিডিয়া, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা' বিষয়ে পড়ছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে 'ইন্টার্নশিপ'-এর সুযোগ। • আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যেকোনো ভিন্নধর্মী খবর (ছবি অথবা ভিডিও) পাঠাতে পারেন। • হটলাইনঃ +৮৮০ ১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ (হোয়াটসঅ্যাপ), • ই-মেইলঃ protibedonbd@gmail.com • গুগল, ফেসবুক ও ইউটিউবে আমাদের পেতে Bangladesh Protibedon লিখে সার্চ দিন।

কিশোর ইয়াছিন আরাফাতের অটোরিকশা চুরির ঘটনায় ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব

বাংলাদেশ প্রতিবেদন
প্রকাশকালঃ বৃহস্পতিবার, ১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২২

কিশোর ইয়াছিন আরাফাতের অটোরিকশা চুরির ঘটনায় ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

নাজিম উদ্দিন রানাঃ

লক্ষ্মীপুরে কিশোর ইয়াছিন আরাফাতের ব্যাটারি চালিত অটোরিকশাটি চুরির ঘটনায় ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। চুরি হওয়া অটোরিকশাটিও উদ্ধার করে মালিককে বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে। বুধবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে লক্ষ্মীপুর প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন র‌্যাব-১১ এর নোয়াখালী ক্যাম্পের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কোম্পানী কমান্ডার খন্দকার মো. শামীম হোসেন।

র‌্যাব জানায়, মঙ্গলবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) দিবাগত রাত সাড়ে ৩ টার দিকে র‌্যাব-১১ সিপিসি-৩ নোয়াখালীর একটি অভিযানিক দল অটোরিকশাটি উদ্ধারসহ চোরদের গ্রেফতারে অভিযানে নামে। নোয়াখালী ও লক্ষ্মীপুরে অভিযান চালিয়ে আন্তঃজেলা চোর চক্রের ৫ সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়। সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের করে তাদেরকে হস্তান্তর করা হবে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন মো. রোবেল, মো. নিজাম, মো. হেলাল, শাহ মো. মঞ্জুরুল করিম নাঈম এবং মো. আব্দুল জলিল। তাদের স্বীকারোক্তির মাধ্যমে নোয়াখালীর বিনোদপুর ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের রুবেলের গ্যারেজ থেকে চোরাইকৃত অটোরিকশাটি উদ্ধার করা হয়।

প্রসঙ্গত, অভাবের তাড়নায় কিশোর বয়সে ইয়াছিন সংসার এর খরচ জোগাড় করতে রিকশা চালানো শুরু করে। ৬ ফেব্রুয়ারী তার রিকশায় ছদ্মবেশী চোর চক্রের দুই সদস্য ভবানীগঞ্জ থেকে লক্ষ্মীপুর মজুপুর এলাকার ফলোয়ান মসজিদ এলাকায় আসে। এসময় তারা ইয়াছিনকে একটি বিল্ডিংয়ের ৩ তলায় সাউন্ড বক্স আনার জন্য পাঠায়। এরমধ্যেই রোবেল, নিজাম ও হেলাল রিকশাটি চুরি করে নিয়ে যায়।

এদিকে বিল্ডিং থেকে নেমে রিকশা খুঁজে না পেয়ে অঝোর ধারায় কাঁদতে থাকে ইয়াছিন। গণমাধ্যম কর্মীদের নজরে পড়লে, সংবাদ পরিবেশন হয়। কয়েকটি গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়। পরে ঢাকার বেসরকারি সংস্থা প্রজেক্টস ফর হিউম্যানিটি (পিফরএইচ) উদ্যোগে ১০ ফেব্রুয়ারি ইয়াছিনকে নতুন একটি অটোরিকশা কিনে দেওয়া হয়।

অন্যদিকে সংবাদটি র‌্যাব-১১ এর দৃষ্টি গোছরে পড়লে রিকশাটি উদ্ধার ও চোর চক্রের সদস্যের গ্রেফতারে অভিযান চালিয়ে প্রথমে ৩ চোরকে গ্রেফতার করা হয়। চোর চক্র রিকশাটি নাঈম ও জলিল এর কাছে ২৫ হাজার টাকায় বিক্রি করে। পরে চোরের তথ্য অনুযায়ী নাঈম ও জলিলকেও গ্রেফতার করে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ