শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১, ০৩:২৩ অপরাহ্ন
জরুরী ঘোষণাঃ
দেশের কয়েকটি জেলা, উপজেলা, থানা ও গুরুত্বপূর্ণ স্থানে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগঃ ০১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ হটলাইন। বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। যোগাযোগঃ +৮৮ ০১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ হোয়াটসআপ। আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যে কোনো ব্যতিক্রম খবর পাঠিয়ে দিতে পারেন। ছবি ও ভিডিও থাকলে আরো ভাল। পাঠিয়ে দিন আমাদের এই ঠিকানায়: protibedonbd@gmail.com • আপনি কি কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে সাংবাদিকতায় পড়শুনা করছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে ‘ইন্টার্নশিপ’ এর সুযোগ। আজই যোগাযোগ করুন। করোনা থেকে বাঁচতে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন।

হাজারীবাগে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা, ভাংচুর-লুটপাট : প্রশাসন নিরব

/ ৩৩ /২০২১
প্রকাশকালঃ শুক্রবার, ১৯ নভেম্বর, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার।। 

রাজধানীর হাজারীবাগ ট্যানারি মোড় এলাকার দীর্ঘদিনের ইন্টারনেট ও ডিস সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানে (A2z Net, ২৫/৪, শের ই বাংলা রোড) শুক্রবার  সন্ত্রাসীরা সংঘবদ্ধ হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় সন্ত্রাসীরা ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান “ইসমাঈল এন্টারপ্রাইজেও হামলা ও ভাংচুর চালায় এবং বিপুল পরিমাণ অফিস সরঞ্জাম, আসবাবপত্র ভাংচুর ও আলমারি ভেঙে নগদ অর্থ লুট করেছে। তারা অফিস কর্মচারীদের উপর চড়াও হলে অনেকেই আহত হয় এবং পালিয়ে যায়। সন্ত্রাসীরদের ইন্টারনেট ও ডিস সেবা পরিচালনার যন্ত্রাংশ, মেশিনারিজ ভাংচুর ও ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির কারণে সাথে সাথেই ইন্টারনেট ও ডিস সেবা বন্ধ হয়ে যায়। বিপাকে পড়ে হাজারো গ্রাহক।

ক্ষতিগ্রস্ত ইসমাঈল ও স্থানীয়রা জানায়, এলাকায় ডিস ব্যবসা ইন্টারনেট ব্যবসা দখলের পায়তারা থেকেই উক্ত পরিকল্পিত সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয় এবং সিরাজুল ইসলাম সাফাক, ইয়াফেজ সামি, বাবু হাওলাদার গংদের নেতৃত্বে ৫০/৬০ জনের একটি দল দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রসহ এই হামলা চালায়। যাদের অধিকাংশই এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী এবং কয়েকজন স্থানীয় ওয়ার্ড যুবলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত বলে অভিযোগ।

হামলাকারীদের মধ্যে হত্যাসহ একাধিক ডাকাতি, অস্ত্র ও মাদক মামলা চলমান রয়েছে অভিযুক্ত সিরাজুল ইসলাম সাফাক এর নামে। তার বিরুদ্ধে আলোচিত সাগর ও সোহেল হত্যা সহ একাধিক ডাকাতি মামলাও রয়েছে।

ঘটনার অন্যতম হোতা আরেকজন
ইয়াফেজ সামি, হাজারীবাগ থানার ১৪ নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি বলে জানা গেছে । এলাকার তার বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ আছে। এলাকার বিভিন্ন স্থান থেকে চাঁদাবাজী, অবৈধভাবে দোকানপাট বসানো সহ মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত আছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

এধরণের ন্যাক্কার জনক ঘটনা ঘটলেও  স্থানীয় পুলিশ প্রশাসন নিরব ভুমিকা পালন করায় এলাকায় আতংক বিরাজ করছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Categories