বুধবার, ১৭ অগাস্ট ২০২২, ০২:০৫ অপরাহ্ন
বিশেষ ঘোষণাঃ
• করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, টিকা নিন। • গুজব নয়, সঠিক সংবাদ জানুন। • দেশের কিছু জেলা, উপজেলা, গুরুত্বপূর্ণ স্থান এবং বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। • আপনি কি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ফিল্ম ও মিডিয়া, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা' বিষয়ে পড়ছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে 'ইন্টার্নশিপ'-এর সুযোগ। • আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যেকোনো ভিন্নধর্মী খবর (ছবি অথবা ভিডিও) পাঠাতে পারেন। • হটলাইনঃ +৮৮০ ১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ (হোয়াটসঅ্যাপ), • ই-মেইলঃ protibedonbd@gmail.com • গুগল, ফেসবুক ও ইউটিউবে আমাদের পেতে Bangladesh Protibedon লিখে সার্চ দিন।

৩১ অক্টোবর খুলছে নোবিপ্রবির আবাসিক হল, ক্যাম্পাসেই টিকা পাবেন শিক্ষার্থীরা

বাংলাদেশ প্রতিবেদন
প্রকাশকালঃ শুক্রবার, ২২ অক্টোবর, ২০২১

৩১ অক্টোবর খুলছে নোবিপ্রবির আবাসিক হল, ক্যাম্পাসেই টিকা পাবেন শিক্ষার্থীরা।

নোবিপ্রবি সংবাদদাতাঃ

করোনাভাইরাসের(কভিড-১৯) কারণে দীর্ঘ দেড় বছরের বেশি সময় বন্ধ থাকার পর আগামী ৩১ অক্টোবর থেকে খুলছে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (নোবিপ্রবি)আবাসিক হলগুলো। শুক্রবার(২২ অক্টোবর) দুপুরে এক বৈঠকের পর এই সিদ্ধান্ত নেয় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বৈঠক সূত্রে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয়ের বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মালেক উকিল হল, হযরত বিবি খাদিজা হল, বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেসা মুজিব হলের আবাসিক শিক্ষার্থীদের মধ্যে যারা করোনাভাইরাস প্রতিরোধে ন্যূনতম ১(এক) ডোজ টিকা নিয়েছেন তারাই হলে উঠতে পারবেন। টিকা গ্রহণের কার্ড ও হলের পরিচয়পত্র দেখিয়ে হলে উঠতে হবে আবাসিক শিক্ষার্থীদের।

বৈঠকে বিশ্ববিদ্যালয় খোলার বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। তবে আগামী মাসেই সশরীরে ক্লাস-পরীক্ষা কার্যক্রম শুরু হবে বলে কয়েকটি নির্ভরযোগ্য সূত্র জানিয়েছে।

এদিকে আগামী কয়েকদিনের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়টির শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসে টিকা দিতে পারবেন বলে জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। নোয়াখালী জেলা সিভিল সার্জন অফিসের সার্বিক সহযোগিতায় বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিক্যাল সেন্টারে এই টিকাদান কার্যক্রম পরিচালিত হবে।

গতকাল বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার(অতিরিক্ত দায়িত্ব) মোহাম্মদ জসীম উদ্দিন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, যে সকল শিক্ষার্থী করোনা টিকার জন্য সুরক্ষা অ্যাল থেকে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল কেন্দ্রে রেজিস্ট্রেশন করেছে কিন্তু এসএমএস পায়নি এবং টিকাদান সম্পন্ন হয়নি তাদেরকে ১ ডোজ টিকা দেয়া হবে এবং যাদের ১ম ডোজ সম্পন্ন হয়েছে তাদেরকে বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে ২য় ডোজ টিকা প্রদানের ব্যবস্থা করা হবে। নোয়াখালী জেলার বাহিরে টিকার জন্য যারা আবেদন করেছে তারা এই সুবিধার আওতায় আসবে না। দ্রুত টিকা পাওয়ার জন্য তাদের নিজ নিজ জেলার সিভিল সার্জন অফিসে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্যয়নপত্র নিয়ে যোগাযোগ করার জন্য বলা হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ