বুধবার, ১৭ অগাস্ট ২০২২, ১০:২৩ পূর্বাহ্ন
বিশেষ ঘোষণাঃ
• করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, টিকা নিন। • গুজব নয়, সঠিক সংবাদ জানুন। • দেশের কিছু জেলা, উপজেলা, গুরুত্বপূর্ণ স্থান এবং বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। • আপনি কি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ফিল্ম ও মিডিয়া, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা' বিষয়ে পড়ছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে 'ইন্টার্নশিপ'-এর সুযোগ। • আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যেকোনো ভিন্নধর্মী খবর (ছবি অথবা ভিডিও) পাঠাতে পারেন। • হটলাইনঃ +৮৮০ ১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ (হোয়াটসঅ্যাপ), • ই-মেইলঃ protibedonbd@gmail.com • গুগল, ফেসবুক ও ইউটিউবে আমাদের পেতে Bangladesh Protibedon লিখে সার্চ দিন।

কটিয়াদীতে জশনে জুলুসে মানুষের ঢল

বাংলাদেশ প্রতিবেদন
প্রকাশকালঃ বুধবার, ২০ অক্টোবর, ২০২১

কটিয়াদীতে জশনে জুলুসে মানুষের ঢল।

মো:মোফাসসেল সরকার/বিশেষ প্রতিনিধিঃ

কিশোরগঞ্জের কটিয়াদীতে কারও হাতে পতাকা, কারও মাথায় বিশেষায়িত টুপি। তাদের বেশিরভাগই পাঞ্জাবি-পায়জামা পরিহিত। ইয়া নবী সালামু আলাইকা স্লোগানে দলবেঁধে এদের কেউ এসেছেন পায়ে হেঁটে…, আবার কেউ এসেছেন পরিবহনযোগে। সবার গন্তব্য বাংলাদেশ রেজভীয়া সূফীবাদী সংগঠনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়।

বুধবার (২০ অক্টোবর) বিকাল ৪টার দিকে বাংলাদেশ রেজভীয়া সূফীবাদী সংগঠনের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে জুলুস শুরু হয়। কার্যালয়ের মাঠ পেরিয়ে সড়কে আসার পরই জনসমুদ্রে পরিণত হয় জুলুসটি। মিছিলটি এলাকার বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে পুনরায় কার্যালয়ে পৌছে যায় । এবারের জুলুসে নেতৃত্ব দিচ্ছেন বাংলাদেশ রেজভীয়া সূফীবাদী সংগঠনের চেয়ারম্যান পীর গাজী হাবিবুর রহমান ।

জানা গেছে, করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে এবারের জুলুসে দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে লোকজন আসতে নিরুৎসাহিত করেছিলেন আয়োজক কমিটি। স্থানীয়ভাবে তাদের জুলুস আয়োজনের জন্য বলা হয়েছিল। তবে এরপরও এসব এলাকা থেকে ছুটে এসেছেন কিছু মানুষ।

আশুলিয়া থেকে এসেছেন আহাম্মদ আলী। তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘নবীর প্রেমে ছুটে এসেছি। গত বছর জুলুসে অংশ নিতে পারিনি…। তবে এবার আর মিস করিনি। আমাদের কাছে আজকে সবচেয়ে বড় ঈদ। আজকের দিনটির জন্য আমরা এক বছর ধরে অপেক্ষা করি।’

বাংলাদেশ রেজভীয়া সূফীবাদী সংগঠন সূত্র জানায়, ‘জুলুস সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে যাবতীয় প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। নিরাপত্তার জন্য সরকারের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পাশাপাশি নিজস্ব সিকিউরিটি ফোর্স ও স্বেচ্ছাসেবক কাজ করছে।

বাংলাদেশ রেজভীয়া সূফীবাদী সংগঠনের ব্যবস্থাপনায় প্রতিবছর ১২ রবিউল আউয়াল এ জুলুস পালন করা হয়…। করোনার কারণে গত বছর সীমিত পরিসরে আয়োজন করার কথা থাকলে তখনও নবীপ্রেমী মানুষের ঢল নামে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ