মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৭:৪৯ অপরাহ্ন
জরুরী ঘোষণাঃ
দেশের কয়েকটি জেলা, উপজেলা, থানা ও গুরুত্বপূর্ণ স্থানে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগঃ ০১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ হটলাইন। বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। যোগাযোগঃ +৮৮ ০১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ হোয়াটসআপ। আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যে কোনো ব্যতিক্রম খবর পাঠিয়ে দিতে পারেন। ছবি ও ভিডিও থাকলে আরো ভাল। পাঠিয়ে দিন আমাদের এই ঠিকানায়: protibedonbd@gmail.com • আপনি কি কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে সাংবাদিকতায় পড়শুনা করছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে ‘ইন্টার্নশিপ’ এর সুযোগ। আজই যোগাযোগ করুন। করোনা থেকে বাঁচতে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন।

মানিকগঞ্জে সিংগাইরে অটোরিক্সার মালিক হওয়ার স্বপ্নে বন্ধুকে হত্যা

/ ৪১ /২০২১
প্রকাশকালঃ বৃহস্পতিবার, ৭ অক্টোবর, ২০২১

মানিকগঞ্জে সিংগাইরে অটোরিক্সার মালিক হওয়ার স্বপ্নে বন্ধুকে হত্যা।

এস কে সুমন মাহমুদ/মানিকগঞ্জ জেলা প্রতিনিধিঃ

মানিকগঞ্জে সিংগাইরের চাঞ্চল্যকর অটোরিকশা চালক মাসুদ শেখ হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটন ও মূল হত্যাকারী ফরিদ গ্রেপ্তার। হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত ছুরি ও গামছা ও অটোরিকশা উদ্ধার।

বৃহস্পতিবার (৭ অক্টোবর) বিকেল ৪ টায় প্রেস ব্রিফিংয়ের র‌্যাব ৪ এর অধিনায়ক অতিরিক্ত ডিআইজি মোজাম্মেল হক জানান, মাসুম শেখ বয়স ২৭ বছর বাড়ি রাজবাড়ী যোগা। মাসুদ শেখের বাবা জীবিকার প্রয়োজনে প্রায় ২৬ বছর পূর্বে ঢাকা জেলার সাভারের সবুজবাগ এলাকায় আগমন করে ভাড়া বাসায় বসবাস শুরু করেন। মাসুদ পেশায় অটোরিকশা চালক। সে সাভারসম্ভ সিংগাইর ও ধামরাই এলাকায় অটোরিকশা চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করত।

গত ২ অক্টোবর ২০২১ তারিখ বিকাল ৪.৩০ ঘটিকার দিকে অটোরিকশা নিয়ে বাসা হতে বের হয়ে রাত ১১.৩০ ঘটিকা পর্যন্ত বাসা ফেরেনি এবং তার মোবাইল বন্ধ পাওয়ায় তার পরিবার সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজাখুঁজি শুরু করেন। পরবর্তীতে ভিকটিমের ভাই মোঃ মজনু মিয়া সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে এই নিখোঁজের খবর প্রচার করেন এবং ৩ অক্টোবর ২০২১ তারিখে সাভার মডেল থানায় নিখোঁজের একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। পরবর্তীতে গত ৫ অক্টোবর ২০২১ তারিখে ফেইসবুকের মাধ্যমে জনৈক সাংবাদিকের মারফত জানতে পারেন একটি অজ্ঞাত লাশ মানিকগঞ্জ জেলার সিংগাইর থানাধীন দাশেরহাটি গ্রামে পাওয়া গিয়েছে। তাৎক্ষনাৎ ভিকটিমের ভাই ও ত পরিবার ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি মাসুদ শেখের বলে শনাক্ত করে।

ওদিনেই তার ভাই মজনু মিয়া বাদী হয়ে মানিকগঞ্জ জেলার সিংগাইর থানায় অজ্ঞাতনামা ব্যাক্তিদের অভিযুক্ত করে মামলা দায়ের করেন। বিষয়টি মিডিয়াতে ব্যাপক চাঞ্চলের সৃষ্টি করে। ফলশ্রুতিতে র‌্যাব ৪ গোয়েন্দা নজরদারী বৃদ্ধি পূর্বক ছায়া তদন্ত শুরু করে।

এরই ধারাবাহিকতায় গোপন সংবাদ ও বিভিন্ন তথ্য উপাত্তের ভিত্তিতে গত ৬ অক্টোবর ২০২১ তারিখ সন্ধ্যা থেকে রাত ১২ টা পর্যন্ত র‌্যাব-৪ এর একটি অভিযানিক দল সাভার মডেল থানা এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে হত্যাকাণ্ডের মূল পরিকল্পনা ও সংশ্লিষ্টতায় মূলহত্যাকারী মোঃ ফরিদকে (৩৩) গ্রেপ্তার করা হয়। হত্যাকারীর দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে জনৈক আলমাস হোসেন এর অটোপার্সের দোকান হতে ভিকটিমের ছিনতাইকৃত অটোরিক্সা, আসামির বাসা হতে ভিকটিমের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন এবং হত্যার কাজে ব্যবহৃত গামছা ও ছুরি সিংগাইরের গোবিন্দল গ্রামের তালপটি ব্রিজের নীচ থেকে উদ্ধার করা হয়।

আসামি ফরিদকে জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তারকৃত আসামি ফরিদ (৩৩) জানায় তার বাড়ি মানিকগঞ্জ জেলার সিংগাইর থানা এলাকায়। তার নিজের কোন অটোরিকশা না থাকায় অন্যের অটোরিকশা ভাড়ায় চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করত। সে নিজে একটি অটোরিকশার মালিক হওয়ার উদ্দেশ্যে মাসুদের অটোরিকশাটি ছিনতাইয়ের পরিকল্পনা করে। এই উদ্দেশ্যে মাসুদের সাথে প্রথমে বন্ধুত্ব স্থাপন করে, পরবর্তীতে গত ০২ অক্টোবর ২০২১ তারিখে মাসুদের অটোরিকশা ভাড়া করে পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী তাকে মানিকগঞ্জের সিংগাইর থানাধীন দাশেরহাটি আলমমারা ব্রিজ সংলগ্ন এলাকার নির্জন স্থানে কৌশলে নিয়ে সুযোগ বুকে গলায় গামছা পেচিয়ে, ছুরি দিয়ে গলায় উপর্যপুরি আঘাত করে হত্যা করে।

মৃত্যু নিশ্চিত হওয়ার পর দুই হাতের আঙ্গুল কেটে বিভিন্ন যায়গায় ফেলে অটোরিক্সা নিয়ে পালিয়ে গিয়ে খরার চর বাজারস্থ আলমাস হোসেনের গ্যারেজে নিয়ে ১৫,০০০/- টাকার বিনিময়ে আটোরিক্সার রং, বডি ও মডেল পরিবর্তন করার জন্য রেখে যায় এবং পরবর্তীতে ঘটনাস্থল হতে ২ কিঃমিঃ দূরে গোবিন্দা গ্রামের তালপটি জামে মসজিদের পাশে তালগটি ব্রিজের নিচ হতে হত্যার কাজে ব্যবহৃত চুরি ও গামছা ফেলে দিয়ে সে আত্মগোপনে চলে যায়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Categories