বুধবার, ১৭ অগাস্ট ২০২২, ১১:২৫ পূর্বাহ্ন
বিশেষ ঘোষণাঃ
• করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, টিকা নিন। • গুজব নয়, সঠিক সংবাদ জানুন। • দেশের কিছু জেলা, উপজেলা, গুরুত্বপূর্ণ স্থান এবং বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। • আপনি কি কোন বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ফিল্ম ও মিডিয়া, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা' বিষয়ে পড়ছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে 'ইন্টার্নশিপ'-এর সুযোগ। • আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যেকোনো ভিন্নধর্মী খবর (ছবি অথবা ভিডিও) পাঠাতে পারেন। • হটলাইনঃ +৮৮০ ১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ (হোয়াটসঅ্যাপ), • ই-মেইলঃ protibedonbd@gmail.com • গুগল, ফেসবুক ও ইউটিউবে আমাদের পেতে Bangladesh Protibedon লিখে সার্চ দিন।

ঝালকাঠি প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আক্কাস সিকদারের নামে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার প্রতিবাদ জানিয়েছে জাতীয় মানবাধিকার সমিতি

বাংলাদেশ প্রতিবেদন
প্রকাশকালঃ বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই, ২০২১

ঝালকাঠি প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আক্কাস সিকদারের নামে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার প্রতিবাদ জানিয়েছে জাতীয় মানবাধিকার সমিতি।

ঝালকাঠি প্রেসক্লাবের বার বার নির্বাচন সাধারণ সম্পাদক, দৈনিক যুগান্তর,চ্যানেল 24 ও বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা-বাসস এর জেলা প্রতিনিধি অ্যাডভোকেট আক্কাস সিকদারের নামে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার প্রতিবাদ জানিয়েছে জাতীয় মানবাধিকার সমিতি

গতকাল রাত১১টায় ঝালকাঠি জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শারমিন মৌসুমী কেকা বাদী হয়ে ঝালকাঠি সদর থানায় মামলা করেন।উল্লেখ গত ১৫জুলাই বিশিষ্ট গীতিকার ও সংগীত শিল্পী পুঁথিরাজ Monka Neamul Basher তার ফেসবুক পেইজে এক পোস্টে উল্লেখ করেন,কোরবানির পশু পরিবহনের ক্ষেত্রে ব্যবসায়ীরা পথে পথে চাঁদাবাজি ও হয়রানিতে শিকার হচ্ছে।এ পোস্টে কমেন্ট করেন আককাস সিকদার সহ অনেকেই।কমেন্ট করার অভিযোগে আককাস সিকদারকে এক মাত্র আসামী করা হয়েছে।ঘটনার ১৫ দিন পরে রহস্য জনক ভাবে সাংবাদিকদের কন্ঠ রোধ করার বিতর্কিত ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলা করা হয়েছে।

বাংলাদেশের গণমাধ্যমের স্বাধীনতারোধ করার জন্য ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন করা হয়েছে বলে বিশ্ব মিডিয়ায় যখন নিন্দা ও প্রতিবাদ ঝড় উঠেছে।ঠিক সেই মূহুর্তে ঠুনকো অজুহাতে পেশাদার এক সাহসী সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হলো।ফেসবুক পেইজে সর্বজন স্বীকৃত একটি ঘটনা পোস্ট হলো তাতে অনেকেই কমেন্ট করেছে কিন্তু রহস্যজনক ভাবে এক মাত্র আককাসকে আসামি করা হয়েছে।এতেই বোঝা যায় এটা একি ষড়যন্ত্রমূলক মামলা।

অবিলম্বে আককাস সিকদারের বিরুদ্ধে সাজানো পাতানো সাংবাদিকদের কন্ঠ রোধ করা বিতর্কিত মামলা প্রত্যাহারের দাবি ও নিন্দা জানিয়ে বিবৃতি দেন বাংলাদেশ জাতীয় মানবাধিকার সমিতির চেয়ারম্যান মোঃ মঞ্জুর হোসেন ঈসা, মহাসচিব এডভোকেট সাইফুল ইসলাম সেকুল এবং সাংগঠনিক সম্পাদক লায়ন আল আমিন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ