শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:০৮ অপরাহ্ন
জরুরী ঘোষণাঃ
দেশের কয়েকটি জেলা, উপজেলা, থানা ও গুরুত্বপূর্ণ স্থানে (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগঃ ০১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ হটলাইন। বিশ্বের কয়েকটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরে প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হবে। যোগাযোগঃ +৮৮ ০১৯ ০৯ ৮৬ ২৬ ১৬ হোয়াটসআপ। আপনিও হতে পারেন সাংবাদিক! চলতি পথে নানা অসঙ্গতি, দুর্নীতি, কারো সফলতা বা যে কোনো ব্যতিক্রম খবর পাঠিয়ে দিতে পারেন। ছবি ও ভিডিও থাকলে আরো ভাল। পাঠিয়ে দিন আমাদের এই ঠিকানায়: protibedonbd@gmail.com • আপনি কি কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে সাংবাদিকতায় পড়শুনা করছেন? বাংলাদেশ প্রতিবেদন আপনাকে দিচ্ছে ‘ইন্টার্নশিপ’ এর সুযোগ। আজই যোগাযোগ করুন। করোনা থেকে বাঁচতে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন।

রামুতে আরো ৭৩ রোহিঙ্গা আটক : প্রত্যেককে অর্থ দন্ড

/ ১৩০ /২০২১
প্রকাশকালঃ রবিবার, ২৫ জুলাই, ২০২১

শাহজাহান চৌধুরী শাহীন, কক্সবাজার।।

কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়কের রামু জোয়ারিয়া নালা চেকপোস্টে আরো ৭৩ রোহিঙ্গাকে আটক করা হয়েছে। পরে  ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাদেরকে ১২ হাজার টাকা অর্থ দন্ড দেয়া হয়েছে। এছাড়াও তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন মডেলের ৭০টি ব্যবহৃত মোবাইল সেট জব্দ করা হয়।
রবিবার ( ২৫ জুলাই) বিকেলে রামু উপজেলার জোয়ারিয়ানালা বাজার এলাকায় ‘লকডাউন’ বাস্তবায়নে বসানো চেকপোস্টে তাদের আটক করা হয়। এর আগে শনিবার (২৪ জুলাই) রাত ৮ টার দিকে রামু জোয়ারিয়ানালা ইউনিয়ন চেকপোস্টে ২০ রোহিঙ্গাকে ধরে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়।
আটকরা হলেন, উখিয়ার কুতুপালং বিভিন্ন ক্যাম্পে আশ্রিতা রোহিঙ্গা। তাদেরকে বাংলাদেশ লিগ্যাল এইড এন্ড সার্ভিসেস ট্রাস্ট ( ব্লাস্ট) এর লিগ্যাল অফিসার এড. রিয়াদ হোসাইনের জিম্মায় কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্পে পৌঁছে দেয়ার দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।
জানা গেছে, এসব রোহিঙ্গারা উখিয়া থেকে গিয়ে চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় দিন মজুরের কাজ করার জন্য যাচ্ছিল।
রোহিঙ্গা স্বীকার করে বলেন, তারা উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের বিভিন্ন ব্লকের বাসিন্দা এবং রবিবার সকালে ক্যাম্প থেকে বের হয়। লকডাউনে’ ক্ষেত খামারে কাজের সন্ধানে উখিয়া ক্যাম্প থেকে বেরিয়ে একাধিক গাড়ি পরিবর্তন করে তারা জোয়ারিয়া নালায় পৌঁছেন।
রামু উপজেলা নির্বাহী অফিসার প্রনয় চাকমা জানান, লকডাউন’ বাস্তবায়নে বসানো চেকপোস্টে
আটক রোহিঙ্গাদের মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে অর্থদন্ড দেওয়া হয়েছে। জরিমানার টাকাগুলো রোহিঙ্গাদের কাছ থেকে জব্দ করা হয়েছিল। পরে তাদের ব্লাস্ট এনজিও’র কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
প্রসংগত, ক্যাম্প ছেড়ে বিভিন্ন জায়গায় পালানোর সময় শনিবার (২৪ জুলাই) রাত ৮ টার দিকে রামু জোয়ারিয়ানালা চেকপোস্টে আব্দুল মালেক নামের দালালসহ ২০ জনকে আটক করা হয়েছিল। তাদের ক্যাম্পে ফেরত পাঠানো হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Categories