রবিবার, ১৬ মে ২০২১, ০২:৫৮ অপরাহ্ন

নেটওয়ার্ক মার্কেটিং-এ সফল হওয়ার ৩৩ টিপস

ডেস্ক প্রতিবেদন / ৪৩ /২০২১
প্রকাশকালঃ বুধবার, ২৮ এপ্রিল, ২০২১

নেটওয়ার্ক মার্কেটিং-এ সফল হওয়ার ৩৩ টিপস।

বর্তমানে মাল্টি লেভেল মার্কেটিং বা এমএলএম ব্যবসায় অনেকেই ক্যারিয়ার গড়ছেন। অনেক স্বাধীনতা ও প্রচুর আয়ের সুযোগ রয়েছে এ ব্যবসায়। আসুন জেনে নেই কিভাবে কাজ করলে সফলতা আসবে এ পেশায়।

টিপস একঃ
আপনি যখনই নিশ্চিত হলেন, আপনি নেটওয়ার্ক মার্কেটিং ব্যবসা আরম্ভে আগ্রহী তাহলে প্রথমে নেটওর্য়াক মার্কেটিং ব্যবসা সম্পর্কে নূন্যতম জ্ঞানার্জন করুন। এজন্য অভিজ্ঞদের সহায়তা নিন, বই পুস্তক পড়ুন এবং কোম্পানী কর্তৃক আয়োজিত প্রশিক্ষণ গ্রহণ করুন।

টিপস দুইঃ
নেটওয়ার্ক মার্কেটিং যেহেতু মার্কেটিং বা বিপণনের সাথে সংশ্লিষ্ট সেহেতু আপনাকে প্রথমে হতে হবে একজন আদর্শ বিক্রয়কর্মী। কারণ একজন সফল বিক্রয়কর্মীই একজন সফল নেটওয়ার্কার।

টিপস তিনঃ
প্রথমে লক্ষ্য স্থির করুন এরপর পরিকল্পনা গ্রহন করুন এবং পরিকল্পনার ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত গ্রহন করে তা বাস্তবায়ন করুন।

টিপস চারঃ
নেটওয়ার্ক মার্কেটিং ব্যবসায় সফল হতে চাই অধ্যবসায়, অনুশীলন বুদ্ধিমত্তা, নিয়ম-নিষ্ঠা ও পরিশ্রম । রুটিন মাফিক ও সঠিক সময়ানুযায়ী কার্য সম্পাদন করুন।

টিপস পাঁচঃ
আজ রাতে বসে আগামী দিনের কর্ম-পরিকল্পনা প্রস্তুত করে ফেলুন, কাজগুলো সময়মত ও সঠিকভাবে সম্পাদনের জন্য মানসিক প্রস্তুতি নিন।

টিপস ছয়ঃ
আপলাইন কিংবা ডাউন লাইন এমন কি অন্য গ্রুপের সদস্যদের সাথেও বিনয়ী আচরণ করুন, কারণ বিনয় মানুষকে মহৎ করে।

টিপস সাতঃ
প্রত্যেকের সাথে কুশল বিনিময় করুন এবং পরিবারের খোঁজ খবর নিন। অনুরূপ অন্যরাও আপনার সুখ-দুঃখের সাথী হবে। এভাবে পারস্পরিক সর্ম্পকের ভিত্তিতে বৃহৎ ব্যবসা গড়ে উঠবে।

টিপস আটঃ
শতভাগ সঠিক কোন নেটওর্য়াক মার্কেটিং প্রতিষ্টানে কাজ করতে গিয়ে নিজেকে নিয়ে গর্ব বোধ করুন এবং সহজভাবে প্রতিষ্টান সর্ম্পকে অন্যদের তথ্য সরবরাহ করুন।

টিপস নয়ঃ
কাউকে সাহায্য করছেন এমন মনোভাব দেখাবেন না বরং প্রমান করুন এটি একটি সম্মিলিত প্রয়াস ।

টিপস দশঃ
সর্বদা হাসি-খুশী প্রানবন্ত আচরন প্রদর্শন করুন । প্রানবন্ত পরিবেশ অন্যদের মাঝে ইতিবাচক মনোভাব তৈরী করে।

টিপস এগারঃ
আত্মবিশ্বাসের মাধ্যমে সবকিছু শুরু করুন। আপনার আত্মবিশ্বাস যত দৃঢ় হবে আপনি নেটওর্য়াক ব্যবসায় তত সফল হবেন।

টিপস বারঃ
স্বেচ্ছায় শেখার মানসিকতা আপনার থাকতে হবে। বিভিন্নভাবে ও বিভিন্ন উৎস হতে আপনি যত বেশি শিখবেন তত বেশি এগোতে সক্ষম হবেন।

টিপস তেরঃ
নেটওর্য়াক মার্কেটিং ব্যবসাকে ঝুঁকিমুক্ত বলা হয় কারণ এতে তেমন কোন বিনিয়োগ নেই এবং খরচও বেশি। কিন্তু শ্রম ও সময়ের যে বিনিয়োগ তা যাতে ব্যর্থ না হয় সেদিকে নজর রাখুন।

টিপস চৌদ্দঃ
নেটওয়ার্ক মার্কেটিং একটি নতুন মার্কেটিং সিস্টেম এবং অবিশ্বাস্য আয়ের পথ, এজন্য প্রাথমিক অবস্থায় নতুন ক্রেতা (প্রসফেক্ট) এ পদ্ধতি গ্রহণ নাও করতে পারে। এ সময় আপনাকে অধ্যবসায়ী হতে হবে। প্রতিটি ব্যর্থতাকে এক একটি অভিজ্ঞতা হিসেবে মেনে নিন।

টিপস পনেরঃ
সময়োচিত ও যথাযথ ফলো-আপের মাধ্যমে দক্ষ ডিস্ট্রিবিউটর গড়ে তোলা সম্ভব। নেটওয়ার্ক ব্যবসায় হাজারও ডিস্ট্রিবিউটর প্রয়োজন হয় না বরং কিছু সংখ্যক দক্ষ ডিস্ট্রিবিউটর বড় দল গঠনের জন্য যথেষ্ঠ।

টিপস ষোলঃ
প্রাথমিক পর্যায়ে কমিশন নতুনদের আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে দেয়, এজন্য নতুনরা যাতে স্বল্প সময়ে কমিশন লাভে সক্ষম হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখুন।

টিপস সতেরঃ
আপনার ডাউনলাইন ডিস্ট্রিবিউটরদের সাথে আপনার গাঠনিক দুরত্ব যাই হোক না কেন তার সহিত সুম্পর্ক গড়ে তুলুন এবং সার্বক্ষণিক খোঁজখবর নিন।

টিপস আঠারঃ
ভিন্ন ভিন্ন ব্যক্তিকে ভিন্ন ভিন্নভাবে ফলোআপ করুন। কারণ প্রত্যেকের মনোভাব ভিন্ন। এক্ষেত্রে নিজেকে ধৈর্য্যশীল ও অনুপম ব্যক্তিত্বের অধিকারী হতে হবে।

টিপস উনিশঃ
এমন দু’ধরনের লোককে একত্রে সেমিনারে বসাবেন না। যাদের একজন অস্থির প্রকৃতির অন্যজন স্থির। ফলে একজনের কারণে দু’জনের সম্ভাবনা নষ্ট হবে।

টিপস বিশঃ
দীর্ঘসময় সেমিনার দেখানোর পর ক্লোজিং এ বসিয়ে পূণরায় ব্রেইন ওয়াশের প্রয়োজন নেই যদি না অতিথির আগ্রহ দেখা যায়।

টিপস একুশঃ
ক্লোজিং এর সময় অধিক আন্তরিক হোন, অতিথির আগ্রহের প্রতি লক্ষ্য রাখূন, নিজের দূর্বলতা প্রকাশ করবেন না, সর্বোপরি কোন নেতিবাচক আলোচনা তুলে আনবেন না।

টিপস বাইশঃ
আপনার ডাউনলাইন ডিস্ট্রিবিউটরদের কখনো প্ররোচিত করবেন না মিথ্যে আশ্বাস দিয়ে, বরং পরিশ্রম করে নেটওয়ার্রক ব্যবসার মাধ্যমে সাফল্যের স্বর্ণ শিখরে পৌছাঁনোর সুনির্দিষ্ট উদাহারণ দিন।

টিপস তেইশঃ
পরিবারের সদস্য, প্রতিবেশী ও বন্ধু বান্ধবদের সাথে নিয়ে নেটওর্য়াক মার্কেটিং ব্যবসার ভিত্তি রচনা করুন। এ ব্যবসায় প্রিয়জনদের সান্নিধ্য আপনাকে অনুপ্রেরণা যোগাবে।

টিপস চব্বিশঃ
বিনিময় নিশ্চিত করুন যেমন- অর্থের বিনিময়ে পণ্য ও সেবা, শ্রমের বিনিময়ে পারিশ্রমিক এবং সুপরিকল্পনা ও সময়ের বিনিময়ে সাফল্য।

টিপস পঁচিশঃ
ঘর হতে বের হওয়ার পূর্বেই পরিকল্পনা তৈরী করে ফেলুন। রাস্তায় বের হয়ে পরিকল্পনা গ্রহন করা থেকে বিরত থাকুন।

টিপস ছাব্বিশঃ
প্রথমে নিশ্চিত হউন, কোন রকম বেঁচে থাকতে চান না সম্পদ গড়তে চান। যদি প্রথমটি হয় তবে চাকুরীতে অধিক মনোযোগ দিন আর যদি দ্বিতীয়টি চান তবে নেটওয়ার্ক মার্কেটিং ব্যবসায় লেগে পড়ুন।

টিপস সাতাশঃ
আপনার ডাউনলাইন ডিস্ট্রিবিউটর আপনার জন্য সম্পদ স্বরুপ এদের মাঝ থেকে যতবেশি সম্ভব আপনার ডুপ্লিকেট তৈরী করুন।

টিপস আটাশঃ
নেটওয়ার্ক মার্কেটিং এ কি করা উচিত ও কি অনুচিত জানা প্রয়োজন। কারণ যা উচিত তা আপনাকে একশ ভাগ এগিয়ে দিবে এবং যা অনুচিত তা আপনাকে দুইশ ভাগ পিছিয়ে দেবে।

টিপস উনত্রিশঃ
শৈশব হতে অদ্যবধি আমরা মানুষের সহযোগিতা গ্রহন করি এবং নিজেরাও অন্যদের সহযোগিতা করে থাকি। নেটওর্য়াক মার্কেটিং ব্যবসায় পারস্পরিক নির্ভরশীলতার উপর গুরুত্ব দিন।

টিপস ত্রিশঃ
অন্যের প্রাপ্য মর্যাদা দিন, অন্যের যোগ্যতার সঠিক মূল্যায়ন করুন।

টিপস একত্রিশঃ
অন্যদের বক্তব্য ধৈর্য্য সহকারে শুনুন। অন্যদের বলার সুযোগ প্রদান করলে আপনার উপর আস্থা বেড়ে যাবে।

টিপস বত্রিশঃ
কোম্পানীর কমিশন প্ল্যান ভালভাবে জানা ও এর প্রতি পূর্ণ আস্থা না থাকলে অন্যদেরকে এ ব্যবসায় আকৃষ্ট করাতে ব্যর্থ হবেন। এজন্য কোম্পানীর কমিশন প্ল্যান, বন্টন প্রনালী ও প্রমোশন পদ্ধতির বিষয়ে ভালো ধারণা থাকা আবশ্যক।

টিপস তেত্রিশঃ
নিজে যতবেশি জানবেন ও ব্যক্তিত্বের অধিকারী হবেন ততবেশি অন্যদের প্রভাবিত করতে পারবেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

বাংলাদেশে করোনা ভাইরাস

সর্বমোট

আক্রান্ত
৭৭৯,৭৯৬
সুস্থ
৭২১,৪৩৫
মৃত্যু
১২,১২৪
সূত্র: আইইডিসিআর

সর্বশেষ

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
স্পন্সর: একতা হোস্ট

Categories